* শিক্ষা * শান্তি * প্রগতি

* জয় বাংলা * জয় বঙ্গবন্ধু

শিরোনাম:

শিক্ষার্থীদের ক্লাসে ফিরে যাওয়ার আহ্বান ছাত্রলীগ সভাপতি শোভনের গাইবান্ধায় বন্যার্তদের মাঝে ছাত্রলীগের ত্রাণ বিতরণ ছাত্রলীগের উদ্যোগে মধুর ক্যান্টিনে বিনামূল্যে স্যালাইন বিতরণ শুরু চকরিয়ায় বন্যার্তদের মাঝে ছাত্রলীগের ত্রাণ বিতরণ ট্রাম্পের কাছে প্রিয়া সাহা ভয়ঙ্কর মিথ্যা অভিযোগ করেছেন: জয় লন্ডনে আয়োজিত বাংলাদেশি রাষ্ট্রদূতদের সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বন্যা কবলিত এলাকায় ত্রাণ বিতরণে আওয়ামী লীগের ছয় টিম আমরা সেই ছাত্রলীগ চাই, যেন বাবা-মা তার সন্তানকে নিয়ে গর্ব করে: গোলাম রাব্বানী সম্মেলনে জরুরী চিকিৎসা সেবা প্রদানে ‘মেডিকেল টিম’ রাখার নির্দেশ কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের জবি ছাত্রলীগ কর্মী ওয়াসিরের অকাল মৃত্যুতে ছাত্রলীগ পরিবার গভীর শোকাহত প্রিয়া সাহার অভিযোগের তথ্য ভিত্তিহীন জানালেন মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার শুভ সূচনা করলো হাজী মুহম্মদ মুহসীন হল শিল্পকর্ম প্রদর্শনী-২০১৯ বাংলাদেশের বাঁকে বাঁকে ছাত্রলীগ অবদান রেখেছে : শোভন পঞ্চগড় জেলা শাখার সম্মেলন ঠাকুরগাঁও জেলা শাখার সম্মেলন বাংলাদেশ ছাত্রলীগ, ঝিনাইদহ জেলা শাখার পূর্নাঙ্গ কমিটির সবাইকে অভিনন্দন।। প্রেস বিজ্ঞপ্তি অপারেশন হতে যাচ্ছে মুহসিন হলের প্রিয় রহিম মামার বাঁশিতে ফু দিয়ে বেনাপোল ও বনলতা এক্সপ্রেস ট্রেনের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

আইপি ক্যামেরার আওতায় আসছে সিলেট

২১ জুন, ২০১৯, ১০:১৬ প্রিন্ট

তথ্য প্রযুক্তিতে স্বয়ংসম্পন্ন হচ্ছে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশ (এসএমপি)। অপরাধী নিয়ন্ত্রণে সিলেট মেট্রোপলিটন এলাকায় বসানো হচ্ছে ইন্টারনেট প্রটোকল (আইপি) ক্যামেরা। এসব ক্যামেরার দ্বারা অপরাধে জড়িত কোনো যানবাহন ও অপরাধীর গতিবিধি পর্যবেক্ষণ করা যাবে।

বৃহস্পতিবার (২০ জুন) সন্ধ্যায় মেট্রোপলিটন পুলিশের কোতোয়ালি থানায় বসানো ইন্টারনেট প্রটোকল ক্যামেরার নিয়ন্ত্রণ কক্ষের কাজ পরিদর্শন করেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমদ পলক।
 
এসময় তিনি নগরবাসীকে নিরাপদ রাখতে পুলিশ প্রশাসনকে আরো সক্রিয় হয়ে কাজ করার আহ্বান জানিয়ে বলেন, সরকার দেশকে পুরোপুরি ডিজিটালাইজড করতে কাজ করে যাচ্ছে।
 
তিনি বলেন, ছিনতাই, চুরি, রাহাজানি, খুন এসব অপরাধ ঠেকাতে সরকার ডিজিটাল সিটি প্রকল্পের উদ্যোগ নিয়েছে। এ প্রকল্প বাস্তবায়নে অপরাধ কমে আসবে, সাধারণ নাগরিক আরো সুন্দর ও নিরাপত্তা নিয়ে জীবনযাপন করতে পারবে।
 
এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার পরিতোষ ঘোষ, জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলাম,  উপ পুলিশ কমিশনার (সদর) কামরুল আমিন,  উপ পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) ডিসি ফয়সাল মাহমুদ, কোতোয়ালী মডেল থানার এসি ইসমাইল হোসেন, ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সেলিম মিয়া, প্রকল্প পরিচালক মহিদুর রহমান, উপ প্রকল্প পরিচালক মুধুসুদন চন্দ্র, স্থানীয় পার্টনার গ্লোবাল ট্রেড করপোরেশনের সিইও মছনুল করিম চৌধুরী ও তানজিমুল ইসলাম এবং হুয়াওয়ে চায়নার প্রতিনিধিরা।
 
সংশ্লিষ্টরা জানান, তথ্য ও যোগাযোগ মন্ত্রণালয় উদ্যোগে ও চীনের হুয়াওয়ে কোম্পানির সহায়তায় ‘ডিজিটাল সিলেট সিটি’ প্রকল্পের আওতায় ১১০টি আইপি ক্যামেরা বসানোর কাজ চলছে। প্রায় ৪ কোটি টাকা ব্যয়ে নগরীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে ফাইবার ক্যাবলের মাধ্যমে অপরাধীর ছবি চিহ্নিত করতে সক্ষম এসব ক্যামেরা।
 
পর্যায়ক্রমে নগরের জিন্দাবাজার, বন্দরবাজার, চৌহাট্টা, কোর্ট পয়েন্ট, ক্বিন ব্রিজের দুই প্রান্ত, কদমতলী, হুমায়ুন রশীদ চত্বর, মুক্তিযোদ্ধা চত্বর, সুবিদবাজার, আম্বরখানা, নয়াসড়ক, কুমারপাড়া, শাহজালাল (রহ.) মাজার এলাকা, শাহপরান (রহ.) মাজার এলাকাসহ গুরুত্বপূর্ণ এলাকাগুলোতে আইপি ক্যামেরা বসানো হবে।
 
সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার জেদান আল মুসা বলেন, ডিজিটাল সিটি প্রকল্পের আওতায় প্রথমবারের মতো মহানগর এলাকায় আইপি ক্যামেরা স্থাপন করা হচ্ছে। এর নিয়ন্ত্রণ করতে এসএমপি পুলিশ। ক্যামেরা সার্ভারে থাকা অপরাধীর তথ্য ছবি দিয়ে অনুসন্ধান চালিয়ে অপরাধীকে শনাক্ত করা যাবে। এসব আইপি ক্যামেরা দিন-রাত সবসময় কাজ করতে সক্ষম।
 
তিনি বলেন, আইপি ক্যামেরার শক্তিশালী সার্ভারে এসএমপির তালিকাভুক্ত অপরাধীদের ছবি ও তথ্য দেওয়া থাকবে। নগরীর কোথাও আইপি ক্যামেরায় ওই অপরাধীর চলাফেলা করলে নিয়ন্ত্রণ কক্ষে সংকেত আসবে। তখন অপরাধীকে পাকড়াও করতে পারবে পুলিশ। এছাড়া যে কোনো যানবাহনের গতিবিধিও পর্যবেক্ষণ করা সম্ভব হবে।
 
গ্লোবাল ট্রেড করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মছনুল করিম চৌধুরী বলেন, এরইমধ্যে এসএমপি এলাকায় ১১টি আইপি ক্যামেরা বসানো হয়েছে। এছাড়া ফাইবার ক্যাবল স্থাপনের কাজ শেষ হয়েছে। এখন ক্যামেরা বসানোর কাজ চলছে। ফাইবার ক্যাবলের মাধ্যমে নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে আইপি ক্যামেরাগুলো সরাসরি পর্যবেক্ষণ করা হবে।

পাঠকের মতামত:

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে